বাচ্চাদের মধ্যে পড়ার অভ্যাস গড়ে তোলার ৫টি ধাপ?

বর্তমান দিনে বেশির ভাগ পিতা-মাতারাই প্রচুর চিন্তায় থাকেন।কারণ তাদের সন্তানেরা টিভি,কম্পিউটার বা মোবাইলের ওপরই বেশি সময় ব্যয় করেন।

এ কারণের জন্য “বাচ্চাদের থেকেও বেশি দায়ী কিন্তু পিতা-মাতারাই।বর্তমানে দিনে বেশির ভাগ বাবা-মায়েরা শুরু থেকে কার্টুন,টিভি বা ভিডিও গেমস খেলার প্রতি বেশি অভ্যাস করায়”।

পরবর্তীতে এগুলি তাদের অভ্যাসে পরিণত হয়।(এমন বাবা-মা খুব কমই রয়েছেন যারা শুরুতেই বাচ্চাদের ভালো মানুষ হওয়ার প্রতি ও বই পড়ার প্রতি মনোযোগী করেন)।

বাচ্চাদের মধ্যে পড়ার অভ্যাস গড়ে তোলার উপায়?

এ কারণের জন্য “বাচ্চাদের থেকেও বেশি দায়ী কিন্তু পিতা-মাতারাই।বর্তমানে দিনে বেশির ভাগ বাবা-মায়েরা শুরু থেকে কার্টুন,টিভি বা ভিডিও গেমস খেলার প্রতি বেশি অভ্যাস করায়”।  পরবর্তীতে এগুলি তাদের অভ্যাসে পরিণত হয়।(এমন বাবা-মা খুব কমই রয়েছেন যারা শুরুতেই বাচ্চাদের ভালো মানুষ হওয়ার প্রতি ও বই পড়ার প্রতি মনোযোগী করেন)।

«বই পড়ার অভ্যাস বাচ্চাদের intelligent করে তোলে»।এই পড়াই তার সারাজীবন কাজে লাগে।(বাচ্চাদেরকে বই পড়ার প্রতি অভ্যাস্ত করার জন্য কী করতে হবে তা আজ আমরা এই ছোট্ট পোস্টের মাধ্যমে আপনাদের সাথে শেয়ার করবো)।

১.বাচ্চার জন্য আপনি পড়ুনঃ

যতদিন পর্যন্ত (আপনার বাচ্চা পড়তে না শেখে ততদিন পর্যন্ত তার জন্য আপনিই পড়ুন)।বাচ্চাকে ছবির বই বা গল্পের বই থেকে গল্প শোনান এতে আপনার সন্তানের বইয়ের প্রতি আগ্রহ তৈরি হবে।

২.আপনার ঘরে এমন সব জিনিস রাখুন,যাতে পড়ার প্রতি তার আগ্রহ তৈরি হয়ঃ

(ঘরে একটি ব্ল্যাকবোর্ড রাখুন,পেপার, পেন্সিল, বুক,পিকচার বুক,গল্পের বই,বিভিন্ন পৌরাণিক কাহিনি এসব রাখুন।তার জন্য নতুন নতুন শিখন সামগ্রী কিনতে থাকুন)। 

৩.বাচ্চার জন্য সময় দিনঃ

অনেক বাবা-মাই কাজের জন্য ভীষণ ব্যস্ত থাকেন।(তারা তাদের বাচ্চার জন্য পড়ার সময়ও পান না।সেক্ষেত্রে সারাদিন সময় না পেলেও রাতে অবশ্যই বই পড়ে কাহিনি শোনাবেন।বিশেষজ্ঞদের মতে কোনো ভালো leaders দের বিশেষ ব্যাপার হলো তার parents রাও ভালো leaders ছিলেন।তাই আপনার বাচ্চাকে always এমন পরিবেশের মধ্যে রাখতে হবে যাতে তার মধ্যে অটোমেটিক্যালি পড়ার অভ্যাস তৈরি হয়ে যায়)।

৪.নিউজ পেপার পড়ার অভ্যাসঃ

যখন (আপনার সন্তান পড়তে শিখে যাবে তখন থেকেই তার মধ্যে নিউজ পেপার পড়ার অভ্যাস তৈরি করে দিতে হবে)।পেপার পড়ার ফলে ভাষাগত জ্ঞান ও সাধারণ জ্ঞান অনেক বেশি বেড়ে যায়।বাচ্চাকে বাংলা ও ইংরেজি dictionary ও দিতে হবে যাতে তারা নতুন নতুন অনেক words ও শিখতে পারে।

৫.আপনার সন্তানকে গিফট দেওয়াঃ

সাধারণত “সমস্ত parents রাই তাদের সন্তানকে কোনো না কোনো গিফট দিয়ে থাকেন।কিন্তু আপনি আপনার সন্তানকে গিফট হিসেবে বই দিন।ভালো একটি বই আপনার সন্তানের ভালো values তৈরি করবে ও তাকে আরো বেশি intelligent ও তৈরি করবে”।

অবশ্যই পড়ুন-

তো বন্ধুরা আশা করছি এই tips গুলো follow করলে আপনার ও আপনার বাড়ির সমস্ত সন্তানের পড়ার প্রতি আগ্রহ বাড়বে।

আমাদের শেষ কথাঃ

বন্ধুরা, আশা করি "শিশুর মধ্যে বই পড়ার অভ্যাস" আপনি বুঝতে পারছেন, পোস্টটি ভালো লাগল বন্ধুদের মাঝে শেয়ার করতে ভুলবেন না। আমাদের (অনলাইন কাজ) ওয়েবসাইট সর্বশেষ আপডেট পেতে আমাদের সাইটটি সাবস্ক্রাইব করতে পারেন নতুন নতুন সব পোস্ট পাওয়ার জন্য ভালো থাকবেন।

📝রাইটারঃ-সুমাইয় জান্নাত রিয়া 

📃onlinekaj.com

By commenting you acknowledge acceptance of Whatisloved.com-Terms and Conditions

Post a Comment

By commenting you acknowledge acceptance of Whatisloved.com-Terms and Conditions

Post a Comment (0)

Previous Post Next Post